1. hrhfbd01977993@gmail.com : admi2017 :
  2. editorr@crimenewsmedia24.com : CrimeNews Media24 : CrimeNews Media24
  3. editor@crimenewsmedia24.com : CrimeNews Media24 : CrimeNews Media24
শুক্রবার, ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৪:৩৫ অপরাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ
"ফটো সাংবাদিক আবশ্যক" দেশের প্রতিটি থানা পর্যায়ে "ক্রাইম নিউজ মিডিয়া" সংবাদ সংস্থায় ১জন রিপোর্টার ও ১জন ফটো সাংবাদিক আবশ্যক। আগ্রহী প্রার্থীরা  যোগাযোগ করুন। ইমেইলঃ cnm24bd@gmail.com ০১৯১১৪০০০৯৫
সংবাদ শিরোনাম ::
তিতাসের স্বর্ণের দোকানে ডাকাতি, গ্রেফতার-২ প্রতিবেশীদের সাথে বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক বজায় রেখে ‘সামুদ্রিক সম্পদ’ আহরণ করুন: প্রধানমন্ত্রী ভূয়াচক্র….খুব ভয়ঙ্কর একুশ মাথা নত না করতে শেখায়: প্রধানমন্ত্রী জঙ্গি হামলার কোনো সুনির্দিষ্ট হুমকি নেই — ডিএমপি কমিশনার ‘ন্যাশনাল মেডিকেলে সাঈদ খোকনকে সভাপতি নিয়োগ কেন অবৈধ নয়’ বাংলাদেশ যাতে কখনই রাজাকারদের আস্তানায় পরিণত না হয় সেজন্য সতর্ক থাকুন: প্রধানমন্ত্রী এলজি ও দুই রাউন্ড কার্তুজসহ ২৬ মামলার আসামী গ্রেফতার সরকার বিভিন্ন ব্যবস্থা নেওয়ায় শীঘ্রই মূল্যস্ফীতি কমবে : প্রধানমন্ত্রী নারী উন্নয়নে নবজাগরণ ঘটেছে বাংলাদেশে : প্রধানমন্ত্রী

বর দৃষ্টিপ্রতিবন্ধী, কনে বাকপ্রতিবন্ধী

  • আপডেট সময় মঙ্গলবার, ৯ মার্চ, ২০২১, ১০.৩৬ এএম
  • ৩৩৮ বার পড়া হয়েছে
বর দৃষ্টিপ্রতিবন্ধী, কনে বাকপ্রতিবন্ধী

বরিশাল প্রতিনিধিঃ

 

বরিশাল নগরীর পলাশপুর গ্রচ্ছগ্রামে দৃষ্টি ও বাকপ্রতিবন্ধী দুই ব্যক্তিকে এলাকাবাসী মিলে বিয়ে দিলেন। বিয়ের আনুষ্ঠানিকতা শেষে বর-কনেকে বাড়ি নিয়ে আসা হয় ঘোড়ার গাড়িতে করে।

সোমবার দুপুরে ছিল বর-কনের গায়ে হলুদ। চাঁদা তুলে অতিথি আপ্যায়ন থেকে শুরু করে সকল আয়োজন করা হয়। আনন্দে মাতেন স্থানীয়রা। বর দৃষ্টিপ্রতিবন্ধী কালাম বেপারী (২২) এবং কনে সুমা আক্তার (১৮) শ্রবণ ও বাকপ্রতিবন্ধী।

বর কালামের গ্রামের বাড়ি বাকেরগঞ্জের কালিগঞ্জ গ্রামে। মা-বাবা নেই। তারা দুই ভাই। কালাম ছোট। বড় ভাই আবদুস সালামও বুদ্ধিপ্রতিবন্ধী। শ্রমিকের কাজ করে যা আয় করেন, তা দিয়ে পলাশপুরের গুচ্ছগ্রামে ছোট্ট একটি খুপরি ভাড়া করে থাকেন। আর কনে সুমার বাবা বাবুল পালওয়ান। তিনি রিকশা চালান। দুই মেয়ে, এক ছেলে নিয়ে পাঁচজনের সংসার চলছে টেনেটুনে।
বিয়ের উদ্যোক্তা সুমন সরদার বলেন, ‘রোববার বিকেলে আমরা ঘোড়ার গাড়ি নিয়ে কনের বাড়িতে যাই। তাদের বিয়ে নিবন্ধন করি। সেখানে ফিরনি-মিষ্টি দিয়ে উপস্থিত লোকজনকে আপ্যায়ন শেষে ঘোড়ার গাড়িতে করে কনেকে বরের বাড়িতে তুলে আনি। বর-কনের বাড়ি পাশাপাশি হলেও ঘোড়ার গাড়িতে বর-কনেকে পুরো এলাকা ঘোরানো হয়। এ সময় উৎসুক লোকজন রাস্তার দুই পাশে দাঁড়িয়ে শুভেচ্ছা জানান বরকনেকে।

বিয়ের জন্য এলাকার ২৫ হাজার টাকা চাঁদা তুলে বর-কনের পোশাক, আপ্যায়ন ব্যয় থেকে শুরু করে সবকিছু করা হয়। স্থানীয় ওয়ার্ড কাউন্সিলর কেফায়েত হোসেনও ছিলেন এই উদ্যোগে। তিনি বিয়ের উপহার হিসেবে বরকে হুইলচেয়ার দেন।

বিয়ের পর কালাম কিছুটা চিন্তিত হয়ে পড়েছেন সংসার চালানো নিয়ে। এ জন্য বিত্তবানদের সাহায্য চেয়েছেন।
নববধূ সুমা স্বামীর এ চিন্তার বিষয়ে কিছু বুঝতে পারছে না। বিয়েতে খুশির বিষয়টি তার পুরো চেহারায় ফুটে উঠেছে।

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর
themesbazar_crimenew87
© All rights reserved © 2015-2021
Site Customized Crimenewsmedia24.Com